News From Italy in Bangla


ইতালির তরিনো শহরে বাংলাদেশী যুবককে জবাই করে হত্যা


ইতালির তরিনো শহরে বাংলাদেশী যুবককে জবাই করে হত্যা

তুহিন মাহামুদ ইতালি প্রতিনিধি 

ইতালির তোরিনো শহরে কোর্স ফ্রান্সিয়া ৯৯, ৮ জুন ২০২১ মধ্যেরাতে বাংলাদেশী এক যুবক (২৫)নির্মম ভাবে খুন হয়।বাংলাদেশের কুমিল্লা জেলার বাসিন্দা তিনি।তার নাম মোহাম্মদ ইব্রাহিম কোলেজনোর একটি রেস্তোরাঁয় ডিশ ওয়াশারের কাজ করতেন।তার আরও দু’জন রুম মেট একই রেস্তোরাঁয় কাজ করতেন।

সাপ্তাহিক ছুটিতে বাসায় ছিলেন এবং তার রুমমেট কাজ থেকে যখন বাসায় প্রবেশ করেন তখন মধ্যোরাত, রুমে প্রবেশ করতেই ইব্রাহিমের শিরচ্ছেদ মৃত্যু দেহটি ফ্লোরে পড়ে থাকতে দেখে চিৎকার করেন এবং বাসার নীচে এসে সাহায্যের জন্য চিৎকার ও কান্নাকাটি করেন।

মুহূর্তেই লোকজন জড়ো হয় পুলিশ ঘটনাস্হলে এসে হত্যার কারণ খোঁজার চেষ্টা করেন কিন্তুু অপরাধী আগেই পালিয়ে যায় এমনকি যে অস্ত্র দ্বারা হত্যা করা হয়েছে সেটিও খুনীরা নিয়ে যায়। পরিচিত জন এবং বন্ধুরা সবাই হতবাক সবারই একই কথা ছেলেটা নিরীহ ও শান্ত স্বভাবের ছিলো ব্যক্তিগতভাবে কারো সাথে শত্রুতা ছিলো না।

কেন তাঁকে সহিংসভাবে হত্যা করা হলো এর কারণ খুঁজে পাচ্ছে না।ধারণা করা হচ্ছে “সম্ভবত এটি একটি চুরির চেষ্টা ছিল”, ঘটনাস্থলে পুলিশ ফরেনসিকের লোকেরা এবং মোবাইল দলের তদন্তকারীরা তদন্তের জন্য তৃতীয় তলায় অ্যাপার্টমেন্টের ভিতরে কাজ করছেন।এবং তাৎক্ষণিকভাবে বিল্ডিংয়ের প্রবেশ দরজাটি লাল ফিতা দিয়ে বন্ধ করে দেওয়া হয়।জানার চেষ্টা করে কেউ কি এই হত্যাকান্ডের ব্যপারে কিছু জানে কি না এবং হত্যার রহস্য বের করার চেষ্টা করে তদন্তকারী পুলিশ দলটি। উল্লেখ্য যে, ২০১৪ সালে ইব্রাহিম একা ইতালিতে এসেছিলেন, বাংলাদেশে তাঁর স্ত্রী পরিবারের লোকজন রয়েছে।কাজ না থাকার কারণে “লকডাউন চলাকালীন সময় তিনি দু’বার দেশে গিয়েছিলেন।এবং দেশ থেকে ফিরে কাজে যোগদান করেন।অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রী ও পরিবার এমন শোক কিভাবে মেনে নিবেন এমন প্রশ্ন সকলের।

 

সূত্র তরিনো টু ডে

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *





error: Content is protected !!